আগামী দিনের লক্ষ্য জানালেন ‘শ্রীনগর এক্সপ্রেস’ উমরান মালিক

টি-টোয়েন্টি ফরম্যাট নাকি ব্যাটারদের খেলা! এখানে নাকি সবাই চার-ছক্কার খেলা দেখতে আসে!চলতি আইপিএল-এ এই ধারণা একেবারে বদলে দিয়েছেন উমরান মালিক। ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামের পাটা উইকেটে তুলে নিলেন গুজরাত টাইটান্সের পাঁচ উইকেট। তাও আবার মাত্র ২৫ রান দিয়ে। তবুও তিনি ‘ট্র্যাজিক নায়ক’।

আগুনে গতি ও নিখুঁত লাইন-লেন্থের উপর ভর করে গড়লেন এই ফরম্যাটে এক অদ্ভুত রেকর্ড। সানরাইজার্স হায়দরাবাদের এই তরুণ বিশ্বের সব ধরনের টি-টোয়েন্টিতে প্রথম বোলার, যিনি এক ইনিংসে একাই বিপক্ষের পাঁচ উইকেট নিলেন। বাকি বোলাররা আর কেউ উইকেট নিতে পারেননি। শুধু তাই নয়। ভবিষ্যতে  ১৫৫ কিলোমিটার গতিবেগে বোলিং করা যে তাঁর লক্ষ্য সেটাও জানিয়ে দিলেন ‘শ্রীনগর এক্সপ্রেস’।

ম্যাচের পর উমরান বলছিলেন, “গুজরাতকে আটকে রাখার জন্য অনেক চেষ্টা করেছি। যত দ্রুত গতির বল করতে চেয়েছিলাম। মাঠটি কিছুটা ছোট। তাই স্টাম্পে বল রাখতে চেয়েছিলাম। গতির সঙ্গে স্টাম্প লক্ষ্য করে বল করার চেষ্টা করে গিয়েছি (১৫৫ কিমি প্রতি ঘণ্টায় টার্গেট করে)। ঈশ্বর চাইলে, একদিন আমি ১৫৫ কিমি ঘণ্টা গতিতে বল করবই। তবে এই মুহুর্তে শুধু ভাল বোলিং করতে চাই।”

টসে জিতে ব্যাট করতে নেমে ১৯৫ রান করে বোলারদের হাতে পর্যাপ্ত রসদ তুলে দিতে পেরেছিলেন হায়দরাবাদের ব্যাটাররা। তবে ঋদ্ধিমান সাহা ও শুভমন গিল যে মেজাজে গুজরাত ইনিংসের শুরু করেন, তাতে বড় রান তাড়া করে ম্যাচ জেতা অতি সহজ দেখাচ্ছিল। এমন ব্যাটিং সহায়ক পিচে উমরান ‘একাইএকশ’ ভঙ্গিতে ২৫ রানে ৫ উইকেট নিয়ে হায়দরাবাদকে লড়াইয়ে ফেরানোর চেষ্টা করেন। তবে অন্য বোলারদের কাছ থেকে সাহায্য পাননি এই তরুণ। সেটা হলে ম্যাচের ফলাফল অন্য রকম হতেই পারত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × 2 =