অবিলম্বে শাহজাহানকে গ্রেপ্তার করতে ব্যর্থ হলে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে রাজ্যকে রিপোর্ট দেওয়ার নির্দেশ রাজ্যপালের

কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি সোমবারই জানিয়েছিলেন, সন্দেশখালির ‘নিখোঁজ’ ত়ৃণমূল নেতা শাহজাহান শেখের গ্রেপ্তারিতে কোনও স্থগিতাদেশ দেয়নি আদালত। তাই রাজ্যের পুলিশ তাঁকে গ্রেপ্তার করতে পারবে। এরপর সোমবার রাতেই শাহজাহানের দ্রুত গ্রেপ্তারি চেয়ে রাজ্যকে চিঠি লেখেন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস। রাজভবনের তরফে আনুষ্ঠানিক ভাবে এই চিঠির বিষয়ে কিছু জানা না গেলেও, এক সরকারি আধিকারিককে উদ্ধৃত করে এমনটাই জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা পিটিআই।

হাইকোর্টের শেখ শাহজাহান সংক্রান্ত নির্দেশ এবং প্রধান বিচারপতির মন্তব্যের পরে শাসক তৃণমূল সোমবার আবার দাবি করে, আদালতের কারণেই শাহজাহানকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি রাজ্য পুলিশ। অবশেষে ‘জট’ কেটেছে। সাত দিনের মধ্যে শাহাজাহান গ্রেপ্তার হবেন। তার পরে এক্স হ্যান্ডলে পোস্ট করে তৃণমূলের অন্যতম মুখপাত্র তথা রাজ্য সম্পাদক কুণাল ঘোষ লেখেন, ‘আদালতের আইনি জটেই বিষয়টি আটকে ছিল। তার সুযোগে রাজনীতি করছিল বিরোধীরা। আজ হাইকোর্ট সেই জট খুলে পুলিশকে পদক্ষেপে অনুমোদন দেওয়ায় ধন্যবাদ। সাত দিনের মধ্যে শাহজাহান গ্রেপ্তার হবেন।’

চিঠিতে রাজ্যপাল রাজ্যের উদ্দেশে লিখেছেন, যদি প্রশাসন শাহজাহানকে ধরতে ব্যর্থ হয়, তবে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে রাজভবনে রিপোর্ট জমা দিতে হবে। তা ছাড়াও সন্দেশখালিতে দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে এক শিশুকে ছুড়ে ফেলে দেওয়ার যে অভিযোগ উঠেছিল, তার প্রেক্ষিতে রাজ্যকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন রাজ্যপাল। তদন্তের রিপোর্ট রাজভবনে পাঠানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *