১০০ দিনের কাজে ‘দুর্নীতি’র তদন্তেও নামল ইডি, রাজ্যের চার জেলায় হানা

১০০ দিনের কাজে তদন্তেও  সক্রিয় হল ইডি। মঙ্গলবার সকালেই এক সঙ্গে রাজ্যের চার প্রান্তের চার জেলায় হানা দেন ইডির আধিকারিকেরা। ঝাড়গ্রামের এক সরকারি আধিকারিকের কোয়ার্টারে, হুগলির চুঁচুড়ায় এক ব্যবসায়ীর বাড়িতে এবং মুর্শিদাবাদের একটি জায়গায় তল্লাশি চলে। তল্লাশি চলছে সল্টলেকের একটি আবাসনেও। পাশাপাশি তল্লাশি চলছে মুর্শিদাবাদ জেলার বহরমপুরে এক বহিষ্কৃত পঞ্চায়েতকর্মী রথীন দে-র বাড়িতে। তল্লাশি চলছে চুঁচুড়ার ময়নাডাঙায় এক ব্যবসায়ীর বাড়িতেও। সল্টলেকের যে আবাসনে তল্লাশি চলছে, সেটিতে ধনেখালির প্রাক্তন বিডিও এসকে পান থাকেন বলে ইডি সূত্রে জানা গিয়েছে।

ইডি সূত্রে খবর, ১০০ দিনের কাজের দুর্নীতির তদন্তে এই তল্লাশি অভিযান চলছে। মঙ্গলবার সকাল ৭টা নাগাদ ইডির ছ’জন আধিকারিকের একটি দল কেন্দ্রীয় বাহিনী নিয়ে হানা দেন ওই আধিকারিকের সরকারি আবাসনে।

এদিন সকালে জানা যায়, ঝাড়গ্রামের একটি সরকারি আবাসনে হানা দিয়েছেন ইডি আধিকারিকেরা। পরে জানা যায়, জেলার সংখ্যালঘু দপ্তরের এক প্রশাসনিক আধিকারিককে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে ইডি। আগেই এই দুর্নীতির বিষয়ে হুগলির ধনেখালি এবং মুর্শিদাবাদের বেলডাঙা থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছিল। তার ভিত্তিতেই শুরু হয়েছে তদন্ত। প্রসঙ্গত, এই প্রথম এই বিষয়ের তদন্তে নামল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *