পদ্মশ্রী পেলেন ‘গোল্ডেন বয়’ নীরজ চোপড়া

অলিম্পিকে ইতিহাস গড়েছেন নীরজ চোপড়া। স্বাধীন ভারতের প্রথম অ্যাথলিট হিসেবে ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ডে সোনা জেতেন নীরজ। ভারতীয় ক্রীড়া আঙিনায় তাঁর এই সাফল্য স্বর্ণাক্ষরে লেখা থাকবে। টোকিওয় ৮৭.৫৮ মিটার বর্শা ছুড়ে দেশকে সোনা এনে দেন নীরজ। টোকিওর স্বপ্নে বিভোর হয়ে নেই তিনি। ২০২৪ প্যারিস অলিম্পিকেও জ্যাভলিনে সোনা জিততে চান নীরজ চোপড়া। নিজের লক্ষ্যকে আরও বাড়িয়ে দিয়েছেন তিনি। নীরজেরই এখন লক্ষ্য ৯০ মিটার টপকানো। বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপ, এশিয়ান গেমস আর কমনওয়েলথ গেমস থেকে সোনা আনাটাই লক্ষ্য তাঁর। আর তার জন্য কঠোর পরিশ্রম করছেন আমেরিকার এক জনপ্রিয় অ্যাকাডেমিতে।

২৪ বছরের নীরজ আসলে একটা অলিম্পিকে থামতে চান না। একটা সোনায় শেষ করতে চান না যাত্রা। ট্র্যাক অ্যান্ড ফিল্ড থেকে প্রথম সোনা আনা ভারতীয় মনে প্রাণে বিশ্বাস করেন, তিনি আগামী দিনে আরও সাফল্য দিতে পারবেন দেশকে। পদ্মশ্রী সম্মানে ভূষিত ভারতের সোনার ছেলে। রাষ্ট্রপতি ভবনে নীরজকে সম্মানিত করেন রাষ্ট্রপতি রানমাথ কোবিন্দ। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীও। নীরজ ছাড়াও পদ্মশ্রী সম্মানে ভূষিত হন প্যারালিম্পিকে সোনাজয়ী শাটলার প্রমোদ ভগত।

রাষ্ট্রপতি ভবনে জাতীয় সঙ্গীত শোনার মুহূর্তে আরও আবেগতাড়িত হয়ে পড়েছিলেন নীরজ চোপড়া। নিজেই জানান সেই কথা। নিজের একটি ইউটিউব চ্যানেলও খুলেছেন ভারতের সোনার ছেলে। নীরজ বলেন, ‘টোকিও অলিম্পিকে সোনা জয়ের পর, সবার কাছ থেকে আমি প্রচুর ভালোবাসা আর সমর্থন পাচ্ছি। অ্যাথলিট এবং জ্যাভলিনে সবাই আগ্রহ দেখাচ্ছে। এটা দেখে আমার আরও ভালো লাগছে। জ্যাভলিনের মাধ্যমে যারা কেরিয়ার গড়তে চায়, আমি তাদের সাহায্যও করতে চাই। যে ভাবে কঠোর পরিশ্রম করে আমি দেশের হয়ে সোনা জিতেছি, সেই সমস্ত ভিডিও আমি এই ইউটিউব চ্যানেলে পোস্ট করব। যা দেখে নতুন প্রজন্ম অনেক কিছু শিখতে পারে।’

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

sixteen + twenty =