আক্রান্ত ইডি আধিকারিকদের দেখতে হাসপাতালে রাজ্যপাল ও বিচারপতি গাঙ্গুলী

শুক্রবার সন্ধ্যায় হাসপাতালে তাঁদের দেখতে গিয়েছেন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস। আক্রান্তদের দেখতে গিয়েছেন রেশন দুর্নীতিকাণ্ডের তদন্তকারী অফিসারও। এদিন রাতের দিকে আহত ইডি আধিকারিকদের দেখতে যান হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ও। সকালে তিনি এই হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা করেছিলেন। আহত ইডি আধিকারিকদের সম্বন্ধে বলতে গিয়ে রাজ্যপাল বলেন, ‘ওঁরা খুব সাহসী। আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখতে নিজেদের প্রাণ আহুতি দিতেও পিছপা হবেন না। চিকিৎসার সমস্ত ব্যবস্থা করা হয়েছে।’  ইডির শীর্ষ আধিকারিকেরা হাসপাতালে গিয়ে আক্রান্তদের খবর নিয়েছেন। দিল্লিতে ইডির সদর দপ্তর থেকেও খবর নেওয়া হয়েছে।

আরও কয়েক দিন সল্টলেকের হাসপাতালে রাখা হতে পারে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)-এর সহ-অধিকর্তা রাজকুমার রামকে। চিকিৎসকেরা পর্যবেক্ষণে রাখতে চান তাঁকে। এমনটাই জানা গিয়েছে হাসপাতাল সূত্রে। শুক্রবার সন্দেশখালিতে অভিযানে গিয়ে সব থেকে বেশি আঘাত লেগেছে রাজকুমারের। আক্রান্ত বাকি দুই ইডি আধিকারিকও ওই বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।

ইডি সূত্রে জানা গিয়েছে, সন্দেশখালিতে আক্রান্ত আধিকারিক রাজকুমারের মাথায় চোট লেগেছে। তিনি গুয়াহাটির অফিসার। ইডি সূত্রে জানা গিয়েছে, মাথায় পাঁচ-ছ’টি সেলাই পড়েছে। স্ক্যান করানো হয়েছে। তিনি এখন বেসরকারি হাসপাতালের এইচডিইউ বিভাগে ভর্তি। বাকি দুই ইডি আধিকারিকেরও সেলাই পড়েছে। তৃণমূল নেতার বেশ কয়েক জন অনুগামী একসঙ্গে তিন আধিকারিকের উপর হামলা চালিয়েছিলেন বলে অভিযোগ। হাসপাতাল সূত্রে খবর, সে কারণে তিন আধিকারিকের শরীরের ভিতরে কোথাও আঘাত লেগেছে কি না, তা পরখ করে দেখতে চাইছেন চিকিৎসকেরা। তাই শুক্রবার তাঁদের পর্যবেক্ষণে রাখতে চাইছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *