দক্ষিণ আফ্রিকায় ইতিহাস গড়ে একদিনের সিরিজ জয় বাংলাদেশের

সেঞ্চুরিয়নে এক অন্যন্য ইতিহাস গড়ল টাইগার্সরা। তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের শেষ ও নির্ধারক ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকাকে তাদের ঘরের মাঠে হারাল বাংলাদেশ। ১৪১ বল বাকি থাকতে ৯ উইকেটে ম্যাচ জিতে নিল বাংলাদেশ। এই জয়ের ফলে দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে প্রথমবার ওয়ানডে সিরিজ জিতল বাংলাদেশ। প্রথমে বোলিং করে তাসকিন আহমেদের পাঁচ উইকেটের সাহায্যে দক্ষিণ আফ্রিকা ৩৭ ওভারে ১৫৪ রানে গুটিয়ে যায়। জবাবে এক উইকেট হারিয়ে ২৬.৩ ওভারে লক্ষ্য তাড়া করে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশের অধিনায়ক তামিম ইকবাল অপরাজিত ৮৭ ও লিটন দাস ৪৮ রান করেন। কেরিয়ারের ৫২ তম হাফ সেঞ্চুরি করেন তামিম। ৮২ বলে ১৪ টি চার মেরেছেন তিনি। একই সঙ্গে ৫৭ বলে আটটি চার মেরেছেন লিটন। দুটি চারের সাহায্যে ২০ বলে অপরাজিত ১৮ রান করেন সাকিব আল হাসান। এর আগে জানুয়ারিতে ভারতীয় দল দক্ষিণ আফ্রিকা সফর করেছিল। সেখানে ওয়ানডে সিরিজে ০-৩ ব্যবধানে পরাজয়ের মুখোমুখি হয়েছিল ভারত। কিন্তু বাংলাদেশ তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে দক্ষিণ আফ্রিকাকে ২-১ ব্যবধানে পরাজিত করে সিরিজ জিতল।

এর আগে তাসকিন আহমেদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা ১৫৪ রানে গুটিয়ে যায়। ৯ ওভারে ৩৫ রান দিয়ে ৫ উইকেট নেন তাসকিন। তার পারফরম্যান্সের জন্য তাসকিন ম্যান অফ দ্য ম্যাচ পুরস্কারের পাশাপাশি প্লেয়ার অফ দ্য সিরিজের পুরস্কারও পেয়েছেন। দক্ষিণ আফ্রিকার শুরুটা ভালো ছিল। কুইন্টন ও সুইটহার্টের মধ্যে প্রথম উইকেটে ৪৬ রানের পার্টনারশিপ গড়ে ওঠে। কিন্তু এরপর উইকেট পতন চলতেই থাকে, ১০০ রানের মধ্যে প্রোটিয়াদের পাঁচটি উইকেট পড়ে যায়। সর্বোচ্চ ৩৯ রান করেন জানেমান মালান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fourteen + 6 =