করোনার দাপটে দেশে একদিনেই মৃত ৫, সতর্কবার্তা হু-র

দেশজুড়ে ফের আতঙ্ক ছড়াতে শুরু করেছে করোনা । মারণ ভাইরাসের থাবায় একদিনেই ৫ জনের মৃত্যুর খবর মিলেছে। ২৪ ঘণ্টায় কোভিড আক্রান্ত হয়েছেন ৩৩৫ জন। দেশজুড়ে অ্যাক্টিভ রোগীর সংখ্যা প্রায় ২ হাজার ছুঁয়ে ফেলেছে। দেশবাসীকে সতর্ক থাকতে নির্দেশ দিয়েছে স্বাস্থ্য মন্ত্রক। শুধু ভারতে নয়, দুনিয়াজুড়েই বাড়ছে করোনার প্রকোপ। মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে বেশ কয়েকটি দেশে। সতর্কবার্তা জারি করেছে হু।

স্বাস্থ্যমন্ত্রক সূত্রে খবর, রবিবার পাঁচজন কোভিড আক্রান্তের মৃত্যু হয়েছে দেশজুড়ে। তার মধ্যে চারজনই কেরলের। এক কোভিড আক্রান্তের মৃত্যু হয়েছে উত্তরপ্রদেশেও। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের পরিসংখ্যান বলছে, রবিবার যে পাঁচ জন করোনার কারণে মারা গিয়েছেন, তাঁদের মধ্যে চার জনই কেরলের বাসিন্দা। এ ছাড়া, উত্তরপ্রদেশ থেকে একটি মৃত্যু নথিভুক্ত হয়েছে। কেরল চিন্তা বাড়িয়েছে। কারণ, সেখানেই করোনার নতুন একটি উপরূপের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। যার নাম জেএন.১। এখনও পর্যন্ত কেরলে এক জনের শরীরেই ওই উপরূপের অস্তিত্বের কথা জানা গিয়েছে।

করোনার উপরূপ জেএন.১ গত সেপ্টেম্বর মাসে আমেরিকায় প্রথম পাওয়া যায়। তার পর ভাইরাসের এই উপরূপযুক্ত বেশ কয়েক জন রোগীর কথা জানা গিয়েছে। সম্প্রতি চিনে জেএন.১ চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। সাত জনের শরীরে মিলেছে ওই উপরূপ। সাধারণ করোনা রোগীর সংখ্যাও কম নয়।

কেরলের এক বৃদ্ধার দেহে মিলেছে ভাইরাসের এই নয়া ভ্যারিয়েন্ট। যদিও সেরাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী বীনা জর্জের মতে, আতঙ্কিত হওয়ার কোনও কারণ নেই। তবে আমজনতাকে সতর্ক থাকতে অনুরোধ করেছেন তিনি। রাজ্যের কোভিড পরিস্থিতির দিকে নজর রাখা হচ্ছে বলেই জানান বীনা। দেশজুড়ে করোনার বাড়বাড়ন্তে সতর্ক কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকও। জোর দেওয়া হয়েছে ভ্যাকসিন নেওয়ার বিষয়টিতে। অর্থনীতিকে ক্ষতিগ্রস্থ না করে কীভাবে জনস্বাস্থ্য বজায় রাখা যায়, সেটাই বিবেচনা করছেন দপ্তরের আধিকারিকরা।

বিভিন্ন দেশেই করোনা নতুন করে মাথা চাড়া দিতে শুরু করেছে। যা নিয়ে সতর্ক করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (হু)। ইতিমধ্যে তারা বিভিন্ন দেশকে এ বিষয়ে বাড়তি সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছে। মারিয়া ভান কেরকোভে হু-এর এক আধিকারিক, যিনি করোনা সংক্রান্ত বিষয়গুলির তত্ত্বাবধান করেন। তাঁর পরামর্শ ভিডিও-বার্তার মাধ্যমে প্রকাশ করেছে সংস্থাটি। ওই আধিকারিক জানিয়েছেন, কেন এই সময় হঠাৎ আবার করোনা মাথা চাড়া দিয়ে উঠতে শুরু করেছে। কী ভাবে তা ঠেকানো যায়, সেই উপায়ও বাতলে দিয়েছেন।

বড়দিনের সময়ে উৎসবের মরশুমে বিশেষ করে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে সাধারণ মানুষকে। কেবল কোভিড নয়, ইনফ্লুয়েঞ্জার মতো রোগ থেকেও সতর্ক থাকতে পরামর্শ দিচ্ছে হু।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × 5 =