ইতিহাস গড়ে বড় দলকে ছিটকে দিয়ে বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন উগান্ডার

ইতিহাস গড়ল উগান্ডা। প্রথম বার বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন করল আফ্রিকার এই দেশ। ২০২৪ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে খেলার যোগ্যতা অর্জন করল। আফ্রিকার পঞ্চম দেশ হিসেবে বিশ্বকাপে খেলার নজির গড়তে চলেছে তারা। যোগ্যতা অর্জন পর্ব থেকেই তারা ছিটকে দিল জিম্বাবোয়ের মতো শক্তিশালী দেশকে। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আফ্রিকা অঞ্চলের যোগ্যতা অর্জন পর্ব থেকে দুটি দেশ চব্বিশের বিশ্বকাপে অংশ নেবে। নামিবিয়ার সঙ্গে দ্বিতীয় দল হিসেবে বিশ্বকাপে জায়গা করে নিল তারা। ভারতের মাটিতে ওয়ান ডে বিশ্বকাপের পর এ বার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও খেলার সুযোগ পাচ্ছে না ক্রিকেটে জিম্বাবোয়ের মতো ঐতিহ্যশালী দেশ।

যোগ্যতা অর্জন পর্বে ৬ ম্যাচের মধ্যে পাঁচটিই জিতেছে উগান্ডা। সবচেয়ে বড় অঘটন ঘটেছিল কয়েক দিন আগেই। ক্রিকেট মানচিত্রে উগান্ডাকে দূরবীণ দিয়ে খুঁজতে হবে। অন্য দিকে, জিম্বাবোয়ে। সে দেশের ক্রিকেটের ইতিহাস এবং ঐতিহ্য আছে। গত টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও খেলেছে জিম্বাবোয়ে। ক্রমশ তাদের ক্রিকেট ঘুরে দাঁড়াচ্ছিল। যদিও ওয়ান ডে বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন পর্বে অনবদ্য পারফর্ম করেও শেষ অবধি টিকিট জোগার করতে পারেনি তারা। শ্রীলঙ্কার সঙ্গে দ্বিতীয় দল হিসেবে ওয়ান ডে বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন করেছিল নেদারল্যান্ডস।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন পর্বে তানজানিয়াকে হারিয়ে অভিযান শুরু করেছিল উগান্ডা। দ্বিতীয় ম্যাচে অবশ্য নামিবিয়ার অলরাউন্ডার ডেভিড উইজের অনবদ্য বোলিংয়ের সামনে হার মানতে হয় উগান্ডাকে। ৬ উইকেটে হেরেছিল তারা। এরপর জিম্বাবোয়ের বিরুদ্ধে ৫ উইকেটের অনবদ্য জয়। এরপর তারা হারায় কেনিয়াকে। এ দিন রাওয়ান্ডাকে ৯ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে হারিয়ে বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন করল উগান্ডা।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *