কুকুর ছানাকে পিটিয়ে খুনে ডাস্টবিনে ছুড়ে ফেললেন মহিলা, আটক অভিযুক্ত

একটি কুকুর ছানাকে লাঠি পিটিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করার অভিযোগ উঠল এক মহিলার বিরুদ্ধে। নৈহাটি পুরসভার ১৬ নম্বর ওয়ার্ডের কে.ডি. রোড এলাকায় এই নির্মম ঘটনা ঘিরে রীতিমতো উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছে। অভিযোগ, সোমবার সকালের দিকে ওই কুকুর ছানাটিকে লাঠি দিয়ে এলোপাতাড়ি পেটায় স্থানীয় বাসিন্দা সংগীতা সাউ। কুকুর ছানাটিকে পিটিয়ে হত্যা করে ডাস্টবিনে ফেলে দেন ওই মহিলা। আর কুকুর ছানাকে পিটিয়ে মারার সেই দৃশ্য নিজের মোবাইল ক্যামেরায় বন্দি করেন পড়শি যুবক অভিষেক সাউ। অভিযুক্ত মহিলার শাস্তি দাবি জানিয়ে সেই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে দিন অভিষেক। অবলা জীব হত্যার সেই ছবি সোস্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই নিন্দার ঝড় উঠেছে গোটা নৈহাটি জুড়ে। ঘটনাকে ঘিরে কে ডি রোড এলাকায় উত্তেজনার খবর পেয়ে নৈহাটি থানার পুলিশ এসে সংগীতা দেবীকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। যদিও ক্ষুব্ধ এলাকাবাসী সংগীতা দেবীর কঠোর শাস্তির দাবিতে সরবও হয়েছেন। স্থানীয় যুবক অভিষেক সাউ জানান, ওইদিন সকালে কুকুর ছানার কান্নার আওয়াজে তার ঘুম ভেঙে যায়। তখন সে জানলা দিয়ে দেখে পড়শি সংগীতা সাউ লাঠি দিয়ে কুকুর ছানাকে পেটাচ্ছে। দু’তিন মাস বয়সের ওই কুকুর ছানাটিকে পিটিয়ে হত্যা করে সংগীতা দেবী ডাস্টবিনে ছুড়ে ফেলে দেন। অভিষেকের মা পুষ্প সাউ জানান, প্রথমে মা কে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে এলাকা ছাড়া করে দেন সংগীতা সাউ। তারপর কুকুর ছানাটিকে পিটিয়ে মেরে চ্যাঙদোলা করে ছুড়ে ডাস্টবিনে ফেলে দেন ওই মহিলা। পুষ্পদেবীর অভিযোগ, আরেকটি কুকুর ছানাকেও লাঠি দিয়ে পিটিয়ে এলাকা থেকে তাড়িয়ে দিয়েছেন ওই মহিলা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *