বাড়ির লোককে খেয়ে প্রমাণ দিতে হচ্ছে খাবার নিরাপদ, জ্যোতিপ্রিয়কে নিয়ে সাবধানী ইডি

কলকাতা: রেশন দুর্নীতির অভিযোগে গ্রেপ্তার হয়েছেন প্রাক্তন খাদ্যমন্ত্রী তথা বনমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক। সুগারের রোগী তিনি। রয়েছেন ইডি হেপাজতে। বাড়ি থেকেই মন্ত্রীর জন্য খাবার আসছে। কিন্তু তার পরেও সেই খাবার বাড়ির লোককে খাইয়ে তা নিরাপদ কিনা নিশ্চিত হওয়ার পরই দেওয়া হচ্ছে মন্ত্রীর পাতে।

জ্যোতিপ্রিয়র খাবার নিয়ে অতি সাবধানী কেন্দ্রীয় সংস্থা। আদালতেও ইডি বলেছিল, উনি কী খাবেন সেটা পরীক্ষা করে দেখতে হবে। সেই পরীক্ষার কাজ বাড়ির লোকই করছে। ইডির সামনে সেই খাবার মন্ত্রীর জন্য খাবার আনা লোকেরাই তা খেয়ে দেখার পর তা পৌঁছচ্ছে মন্ত্রীর থালায়।

মঙ্গলবার রাত থেকে ইডি হেপাজতে রয়েছেন জ্যোতিপ্রিয়। দুদিন বাড়ির খাবারই খেয়েছেন মন্ত্রী। তাঁর জন্য সিজিও কমপ্লেক্সে ইডি অফিসে খাবার আনছেন মন্ত্রীর বাড়ির লোক।

ডায়াবেটিসের রোগী মন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয়। নিয়ম মেনে খাওয়া দাওয়া করেন। ওষুধও খান। আদালতে সে কথা জানিয়েওছিলেন মন্ত্রী। সেই সঙ্গে বলেছিলেন, চিকিৎসক তাঁকে প্রতিদিন ১০ হাজার পা হাঁটতে বলেছেন। মন্ত্রী আচমকা আদালতের মধ্যেই অসুস্থ হয়ে পরায় সাবধানী শুনিয়েছিল বিচারককেও। আদালতে যখন জ্যোতিপ্রিয়ের পরিবার তাঁর জন্য বাড়ি থেকে খাবার পাঠানোর আর্জি জানায়, তখন ইডির আপত্তি সত্ত্বেও সেই আবেদন মঞ্জুর করেন বিচারক। তিনি জানিয়ে দেন, ইডি হেপাজতে থাকাকালীন জ্যোতিপ্রিয়ের জন্য বাড়ি থেকেই খাবার যাবে।

কোর্টের সেই নির্দেশ মেনেই হচ্ছে কাজ। তবে খাবার নিয়েও সাবাধানী পদক্ষেপ ফেলছে ইডি। শুক্রবার বাড়ি থেকেই মন্ত্রীকে গ্রেপ্তার করেছিল ইডি।  মন্ত্রীকে হেফাজতে নিতে চেয়ে আদালতে ইডির আবেদনের শুনানি চলার সময়েই মন্ত্রী অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যেতে হয়। বিচারক জানিয়ে দেন, মন্ত্রী সুস্থ হয়ে ফিরলে তবেই শুরু হবে ১০ দিনের ইডি হেপাজত। চার দিন পরে মঙ্গলবার রাতে মন্ত্রীকে হাসপাতাল থেকে ছুটি দেওয়া হয়। সেখান থেকে তাঁকে নিয়ে সিজিওতে যান ইডির গোয়েন্দারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 + 20 =