গাজায় হামলা নিয়ে ইজরায়েলেই বিক্ষোভের মুখে প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু

তেল আভিভ, ৩১ মার্চ: গাজায় হামলা নিয়ে এবার ইজরায়েলের মাটিতেই প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুকে দেখে বিক্ষোভ দেখাল হাজার হাজার মানুষ। প্রতিবাদীরা তেল আভিভ ও জেরুসালেমের রাস্তায় নেমে পড়েন। অভিযোগ, গাজার পরিস্থিতি সামলাতে ব্যর্থ প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু। পণবন্দিদের মুক্ত করতে তাঁর প্রয়াসের আন্তরিকতা প্রশ্নচিহ্নের মুখে। বিক্ষোকারীদের একটা বড় অংশই পণবন্দিদের আত্মীয়।
শনিবার সন্ধ্যায় ইজরায়েল ও হামাস আলোচনায় বসে। রবিবারও কায়রোয় ফের আলোচনা হওয়ার কথা। এখনও যুদ্ধবিরতির নিয়ে তেমন কোনও ইঙ্গিত না মেলায় বাড়ছে প্রতীক্ষা। এখনও ইজরায়েলি ও বিদেশি মিলিয়ে কমপক্ষে ১৩৪ জন গাজায় পণবন্দি হয়ে রয়েছেন। প্রতিবাদে তেল আভিভে রিং রোড অবরোধ করা ছাড়াও জেরুসালেমেও শয়ে শয়ে প্রতিবাদী রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ দেখান। নেতানিয়াহুর বাড়ির সামনেও বিক্ষোভ প্রদর্শিত হয়। সকলেই পণবন্দিদের দ্রুত মুক্ত না করতে পারায় নেতানিয়াহুর ব্যর্থতার অভিযোগ তোলেন।
উল্লেখ্য, গত ৭ অক্টোবর থেকে গাজায় সামরিক অভিযান চালাচ্ছে ইজরায়েলি বাহিনী। আন্তর্জাতিক মহলে বারবার তোপের মুখে পড়লেও, হামাসের শেষ না দেখে যুদ্ধবিরতিতে যেতে নারাজ সেদেশের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু। এই সামরিক অভিযানের নি¨ায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে শুরু করে একাধিক আন্তর্জাতিক সংগঠন সরব হলেও এবং গাজার সাধারণ মানুষের কথা ভেবে রাষ্ট্রসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে অবিলম্বে সেখানে যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব পেশ হলেও, হামাসকে শেষ করতে অবিচল ইজরায়েল। গত সোমবার গাজায় যুদ্ধবিরতি চেয়ে নিরাপত্তা পরিষদে প্রস্তাব আনে অস্থায়ী সদস্য আলজেরিয়া। প্রস্তাবের সমর্থনে ১৪ সদস্য দেশ ভোট দিলেও, এখনও যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব পাশ হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *