ভাগ্নীর জন্মদিনে চাঁদে জমি কিনে উপহার দিলেন মামা, তাজ্জব গোটা পরিবার

ভাগ্নীর প্রথম জন্মদিন বলে কথা। তাই সকলের উপহারকে ছাপিয়ে চাঁদের এক টুকরো মাটি কিনে ভাগ্নীর জন্মদিনের উপহার দিলেন একমাত্র মামা। জন্মদিনের উপহার হিসেবে কেউ দিয়েছিলেন সোনার আংটি, চালিত তাগা, আবার কেউ দিয়েছিলেন রকমারি খেলনা। কিন্তু সকলের মাঝে অভিনব এই উপহার দিয়ে রীতিমতো নজর কেড়ে নিয়েছেন কালিয়াচক থানার বালুটোলা রামনগর এলাকার বাসিন্দা পেশায় ব্যবসায়ী অমিয় সরকার। তিনি জানিয়েছেন, অনলাইনের মাধ্যমে আমেরিকার একটি স্পেস স্টেশন সংস্থার কাছে জমি কেনার জন্য ৬৭ মার্কিন ডলার দিয়ে রেজিস্ট্রেশন নথিভুক্ত করা হয়েছে। আরসি রেজিস্ট্রেশন করা হয়েছে তার ভাগ্নি তৃষিকা মণ্ডলের নামে। তারই শংসাপত্র ভাগ্নীর তৃষিকা মণ্ডলের নামে করে সোমবার রাতে জন্মদিনের দিন উপহার হিসেবে তুলে দেওয়া হয়েছে।
ছোট শিশুদের ঘুম পাড়ানোর সময় মায়েরা বলে থাকেন ‘আয় আয় চাঁদ মামা টিপ দিয়ে যা’ আর সেই একমাত্র মামাই ভাগ্নির জন্মদিনে চাঁদে জমি কিনে উপহার দিলেন। সোমবার রাতে বালুতলা এলাকায় নিজের বাড়িতেই তৃষিকার ধুমধাম করে জন্মদিন উৎসব পালিত হয়। অমিয়বাবু তার একমাত্র ভাগ্নী তৃষিকা মণ্ডলের প্রথম জন্মদিনে চাঁদে জমি কিনে উপহার দেওয়ার বিষয়টি জানাজানি হতেই গ্রামে রীতিমতো চর্চার কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠেছে।
অমিয় সরকার জানিয়েছেন, এর আগে মালদার এক দম্পতি বিবাহবর্ষিকীতে চাঁদের জমি কিনে উপহার দিয়েছিলেন নিজেদের মধ্যে। সেই বিষয়টি জানতে পেরে ইন্টারনেট ও অনলাইনের মাধ্যমে খোঁজখবর শুরু করি। তারপরই আমেরিকার একটি স্পেস সংস্থার খোঁজ মেলে। সেখানে সমস্ত নথি পেল করে এবং ৬৭ মার্কিন ডলার খরচ করে চাঁদের একটুকরো মাটি কেনার জন্য রেজিস্ট্রেশন করেছি। তার একটি শংসাপত্র মার্কিনী ওই সংস্থা থেকে অনলাইনের মাধ্যমে মিলেছে। আর সেটাই আমি আমার ভাগ্নীকে উপহার হিসেবে তুলে দিয়েছি।
এক বছরের ছোট্ট তৃষিকার মা সুচেতা সরকার জানিয়েছেন, ভাবতে পারেননি তার দাদা এই ধরনের উপহার দেবে। ছোটবেলায় অনেক গল্প শুনেছি। কিন্তু বাস্তবে দাদা তার ভাগ্নীকে চাঁদে জমি কিনে উপহার দেবে তার কাছে এটি স্বপ্ন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fourteen + 13 =