ইস্তফা নয়, শেষ বল পর্যন্ত লড়াই করার ঘোষণা ইমরানের

ঘোষণা মতোই জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান (Imran Khan)। ইস্তফার সম্ভাবনা নাকচ করে তিনি বললেন, ‘শেষ বল পর্যন্ত আমি লড়াই চালাব।’ পাক প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, রবিবার অনাস্থা ভোটের মুখোমুখি হবেন তিনি।

বিদেশি শক্তির সাহায্য নিয়ে তাঁর বিরুদ্ধে চক্রান্ত করার জন্য বিরোধীদের নিশানা করেছেন ইমরান। অভিযোগ করেছেন, ‘দেশের সার্বভৌমন্তব নিয়ে কেনাবেচা চলছে।’ এক ভারতীয় সাংবাদিকের বইয়ের উদাহরণ তুলে ইমরান বলেছেন, ‘ওই বইয়ে সুনির্দিষ্ট ভাবে লেখা আছে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে আমাদের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ নেপালে গোপন বৈঠক করেছেন।’ ঘটনাচক্রে, ইমরানের বিরুদ্ধে পাক পার্লামেন্টে অনাস্থা প্রস্তাব এনেছে নওয়াজের পাকিস্তান মুসলিম লিগ। নওয়াজের ভাই শাহবাজ বিরোধী জোটের তরফে প্রধানমন্ত্রিত্বের দাবিদার।

অন্য দিকে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রী ইমরানের বিরুদ্ধে বিরোধীদের আনা অনাস্থা প্রস্তাব নিয়ে বিতর্ক ছাড়াই পাক ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির (Pak National Assembly)অধিবেশন মুলতুবি হয়ে যায়। সরকারের প্রস্তাব মেনে ডেপুটি স্পিকার কাসিম খান সুরি আগামী রবিবার বেলা সাড়ে ১১টা পর্যন্ত সভা মুলতুবির কথা ঘোষণা করেন। ওই দিনই পাক পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষে অনাস্থা প্রস্তাব ঘিরে ভোটাভুটির মুখোমুখি হওয়ার কথা ঘোষণা করেছে ইমরান সরকার।

তিন দিনের বিরতির বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শুরু হয়েছিল ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির অধিবেশন। শুরুতেই প্রধানমন্ত্রীর সচিব পার্লামেন্টের জাতীয় নিরাপত্তা সংক্রান্ত কমিটির জরুরি বৈঠকের জন্য অধিবেশন মুলতুবির আবেদন জানান। ডেপুটি স্পিকার সেই আবেদন মেনে নেন। বিরোধী পক্ষ আপত্তি তুললেও তিনি তা খারিজ করে দেন। বিরোধী নেতা শাহবাজ শরিফ ইঙ্গিত দিয়েছেন, নতুন প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের জন্য তাঁরা পার্লামেন্টে প্রস্তাব আনতে পারেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

19 − 6 =