রাস্তার দাবিতে অবরোধ, বিক্ষোভ, চাপের মুখে আশ্বাস পূর্ত দপ্তরের

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাঁকুড়া: ঠিকাদারের টালবাহানায় ২৮ কিমির মধ্যে ২ কিমি রাস্তার কাজ থমকে ৯ মাস, একের পর এক দুর্ঘটনার পরেও পূর্ত দপ্তর নির্বিকার বলে অভিযোগ। প্রতিবাদে বাঁকুড়ার পাটপুরে অবরোধ, বিক্ষোভ স্থানীয়দের। প্রবল বিক্ষোভের মুখে পড়লেন পূর্ত দপ্তরের ইঞ্জিনিয়ার, চাপে পড়ে আশ্বাস পূর্ত দপ্তরের।
স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, প্রায় ৯ মাস আগে বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর ব্লকের বাঁকাদহ মোড় থেকে কোতুলপুর ব্লকের জয়রামবাটি মোড় পর্যন্ত প্রায় ২৮ কিমি রাস্তা নতুন করে নির্মাণের বরাত পায় এক ঠিকাদার। কাজও শুরু হয়। গোটা রাস্তা খুঁড়ে ফেলা হয়। ২৮ কিমি রাস্তার মধ্যে ২৬ কিমি রাস্তা নতুন করে নির্মাণও করে ফেলা হয়। কিন্তু দাবি, কোতুলপুর ব্লকের লালবাজার থেকে পাটপুর মোড় পর্যন্ত ২ কিলোমিটার রাস্তার কাজ কিছুতেই শুরু করছেন না ঠিকাদার। এদিকে ওই রাস্তা খোঁড়া অবস্থায় দীর্ঘদিন ধরে ফেলে রাখায় রাস্তাটি চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়ে। বারংবার ঘটতে থাকে দুর্ঘটনা। এই পরিস্থিতিতে মাসখানেক আগে পাটপুর মোড়ে পথ অবরোধ করেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারা।
সেসময় কোতুলপুর থানার পুলিশ অবরোধকারীদের আশ্বাস দেয় দ্রুত ওই ২ কিমি রাস্তার কাজ শুরু করা হবে। কিন্তু তারপরও ঠিকাদারের টালবাহানায় রাস্তার কাজ শুরু না হওয়ায় শনিবার সকাল থেকে পাটপুর মোড়ে পথ অবরোধ শুরু করেন স্থানীয়রা। দাবি তোলেন ঠিকাদারকে অবরোধস্থলে এসে আশ্বাস দিতে হবে। কোতুলপুর থানার পুলিশ অবরোধকারীদের সরানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হয়। শেষ অবধি অবরোধস্থলে হাজির হন পূর্ত দপ্তরের ইঞ্জিনিয়ার। তাঁকে ঘিরে চলতে থাকে অবরোধকারীদের বিক্ষোভ। শেষ পর্যন্ত স্থানীয় একটি ঘরে ঢুকে পূর্ত দপ্তরের ইঞ্জিনিয়ার আগামী সাত দিনের মধ্যে রাস্তা নির্মাণের আশ্বাস দিলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *