একা লড়লেন হরমনপ্রীত, তাও কাটলো না ‘কিউয়ি কাঁটা’

সেডন পার্ক: পাকিস্তানের বিরুদ্ধে দাপুটে জয় দিয়ে বিশ্বকাপ যাত্রা শুরু করেছিল মিতালি রাজের ভারত। কিন্তু দ্বিতীয় ম্যাচেই আবার চেনা ছবি। পাকিস্তান ভারতের কাছে যতটা সহজ প্রতিপক্ষ, ততটা সহজ কিন্তু নয় নিউজিল্যান্ড। আর তাই শুরু থেকেই কিউয়িরা চেপে ধরেছিল মিতালিদের। ঘুরে ফিরে সেই ভারতের সমস্যার জায়গাটা আরও স্পষ্ট হল আজকের ম্যাচে। মিডল অর্ডার কিন্তু বেশ ভোগাচ্ছে ভারতকে। সেটাই আরও চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়াল স্মৃতিদের কাছে। যে নিউজিল্যান্ডের কাছে বিশ্বকাপের আগে ভারত ওয়ান ডে সিরিজে ৪-১ হেরেছিল, সেই ভারত বিশ্বকাপের মঞ্চে কিউয়িদের মুখে নেমেই ভালো পারফর্ম করতে পারল না। যদিও ভারতের হাতে পরবর্তী পর্যায়ে যাওয়ার জন্য ম্যাচ রয়েছে। কিন্তু এইভাবে টিম ইন্ডিয়ার মিডল অর্ডার পারফর্ম করতে না পারলে কিন্তু, বেশ চাপ বাড়বে উইমেন্স ইন ব্লুদের। স্মৃতি মান্ধানা, দীপ্তি শর্মা, মিতালি রাজ, রিচা ঘোষরা কেউই ভরসা দিতে পারছেন না। ফলে ভারতের সমস্যাটা বাড়ছে।

টসে জিতে শুরুতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন মিতালি। প্রথমে ব্যাটিং করে ৯ উইকেট হারিয়ে ২৬০ রান তুলেছিল কিউয়িরা। রান তাড়া করতে নেমে নির্ধারিত ৫০ ওভার অবধি খেলতেই পারল না উইমেন্স ইন ব্লুরা। ৪৬.৪ ওভারে ১৯৮ রান তুলে থেমে যায় ভারতীয় মহিলা দল। ৬২ রানে সোফি ডিভাইনদের কাছে হারলেন পূজারা। হরমনপ্রীত আজ লড়লেন, কিন্তু দলকে জেতাতে পারলেন না। যার ফলে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় ম্যাচেই হারের মুখ দেখতে হল ঝুলনদের। আজ সুযোগ পেয়েছিলেন যস্তিকা ভাটিয়া। কিন্তু ওপেনার স্মৃতি মান্ধানার সঙ্গে তাঁর জুটিটা জমাট হতে পারেনি। ৫.৪ ওভারের মাথায় স্মৃতিকে (৬) ফেরান জেস কের। দীপ্তির (৫) ব্যাটও আজ জ্বলে ওঠেনি। যস্তিকা ২৮ রান করে মাঠ ছাড়েন। মিতালি-হরমনের কাঁধে গিয়ে পড়ে দলকে উদ্ধার করার দায়িত্ব। ৫৬ বল খেলে ৩১ রান করেন মিতালি। এরপর লড়াই চালিয়ে যাচ্ছিলেন হরমনপ্রীত কৌর। হ্যারি ৭১ রানের ইনিংস সাজান ৬টি চার ও ২টি ছয় দিয়ে। বাংলার মেয়ে রিচা ঘোষ প্রথম ম্যাচের মতোই দ্বিতীয় ম্যাচেও ভালো পারফর্ম করতে পারেননি। আজ শূন্যে ফেরেন রিচা। যে জুটি পাক ম্যাচে ভারতকে জয়ের আশা দেখিয়েছিল, সেই স্নেহ রানা ও পূজা বস্ত্রকার জুটি আজ কিউয়িদের বিরুদ্ধে কোনও প্রতিরোধই গড়তে পারলেন না। ১৮ রান করেন স্নেহ, ৬ রানে প্যাভিলিয়নে ফেরেন পূজা। ঝুলনের ব্যাট থেকে এসেছে ১৫ রান। তবে বল হাতে একখানা রেকর্ডে ভাগ বসিয়েছেন বাংলার মেয়ে।

মেয়েদের বিশ্বকাপে এতদিন সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি ছিলেন প্রাক্তন অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটার লিন ফুলস্টন। আজ নিউজিল্যান্ডের কেটি মার্টিনের উইকেট তুলে নিয়ে বাংলার ঝুলন ছুঁয়ে ফেললেন ফুলস্টনকে। কেরিয়ারের পঞ্চম ওয়ান ডে বিশ্বকাপে খেলছেন ঝুলন। তাঁর নামের পাশে এখন ফুলস্টনের মতো বিশ্বকাপের ৩৯টি উইকেট রয়েছে। ঝুলনের পাশাপাশি আজ চারটি উইকেট নিয়ে ভারতকে ম্যাচে রেখেছিলেন পূজা। রাজেশ্বরীর প্রাপ্তি ২ উইকেট। একটি উইকেট পেয়েছেন দীপ্তি শর্মাও। কিন্তু কিউয়ি বোলারদের দাপটে একের পর উইকেট হারিয়ে ৪৬.৪ ওভারের মধ্যে থেমে যায় মিতালিদের ইনিংস।

১২ মার্চ ক্যারিবিয়ান মহিলা দলের বিরুদ্ধে তৃতীয় ম্যাচ রয়েছে স্মৃতিদের। কিউয়িদের বিরুদ্ধে হারের কথা ভুলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে নামতে হবে ভারতকে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর: নিউজিল্যান্ড ২৬০-৯ (অ্যামি ৭৫, অ্যামিলিয়া ৫০, পূজা ৪-৩৪) 

ভারত ১৯৮ (হরমনপ্রীত ৭১, মিতালি ৩১, অ্যামিলিয়া ৩-৫৬)

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

17 − twelve =