শিক্ষামন্ত্রীর পদ থেকে ব্রাত্য বসুকে অপসারণের প্রস্তাব রাজ্যপালের

শিক্ষামন্ত্রী হিসেবে ব্রাত্য বসু নির্বাচনী বিধিভঙ্গ করেছেন বলে অভিযোগ জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর পদ থেকে তাঁকে অপসারণের প্রস্তাব করেছেন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস। রাজ্য সরকারের পাশপাশি নির্বাচন কমিশনকেও রাজভবনের তরফে চিঠি দিয়ে এই দাবি জানানো হয়েছে। এ ব্যাপারে রাজভবনের তরফে এখন কোনও প্রতিক্রিয়া জানা যায়নি। তবে রাজ্যপালের এমন সুপারিশের সত্যতা স্বীকার করে নিয়ে টুইটে পাল্টা আক্রমণ শানিয়েছেন ব্রাত্য বসু। তিনি বলেন, রাজ্যপাল শুধু একটি রাজনৈতিক দলের হয়ে আচরণ করছেন তাই নয়, তিনি নিজের সমস্ত সীমাও অতিক্রম করছেন।
গত ৩০মার্চ গৌড়বঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ে তৃণমূল পন্থী অধ্যাপক সংগঠনের বৈঠক ছিল। সেখানে ব্রাত্য বসুর পাশাপাশি তৃণমূল কংগ্রেসের লোকসভার দু’জন প্রার্থীও বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন। সেকারণেই রাজ্যপালের দাবি, শিক্ষামন্ত্রী হিসেবে ব্রাত্য নির্বাচনী বিধি ভঙ্গ করেছেন। ব্রাত্য পাল্টা বলেন, নির্বাচনী বিধিভঙ্গ হয়ে থাকলে তো রাজনৈতিক দলগুলি অভিযোগ করার কথা। রাজ্যপাল আগ বাড়িয়ে কেন এসব করছেন তা নিয়ে তিনি প্রশ্ন তোলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

18 − nine =