যমজ দুই ভাইয়ের আত্মহত্যা ঘিরে চাঞ্চল্য নৈহাটিতে

ব্যারাকপুর :- একই দিনে যমজ দুই ভাইয়ের আত্মহত্যা ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়ালো নৈহাটির গরুরফাঁড়ি এলাকায়। মৃতদের নাম তরুণ ব্যানার্জি ওরফে জগু এবং অরুন ব্যানার্জি ওরফে মণি। মৃতদের বয়স ৫৫ বছর। স্থানীয় সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার দুপুরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে জগু। বিকেলে ঘুম থেকে উঠে ওই দৃশ্য দেখে সন্ধেতে গরিফা স্টেশনে ট্রেনের সামনে ঝাঁপ দিয়ে আত্মঘাতী হয় মণি।

প্রাথমিক অনুমান, ব্যবসা সংক্রান্ত বিবাদের জেরেই দুই ভাই আত্মঘাতী হয়েছেন। মৃতদের দাদা স্বপন ব্যানার্জির দাবি, বেশ কিছুদিন ধরেই ব্যবসা সংক্রান্ত কারনে দুই ভাইয়ের মধ্যে বিবাদ চলছিল। মাঝে-মধ্যেই ওদের মধ্যে মারপিট হতো। অনেক বুঝিয়েও ওদের বিবাদ মেটানো যায়নি। স্বপন বাবু আরও জানান, তিনি পরিবার নিয়ে কাঁচড়াপাড়ায় থাকেন। ওই বাড়িতে দুই ভাই থাকতেন। বৃহস্পতিবার সকালে দুই ভাইয়ের মধ্যে মারপিট হয়েছে। তা শুনে বিকেলে নৈহাটির বাড়িতে আসি।

ডাকাডাকি করে সাড়া না মেলায় দরজা ধাক্কা দিয়ে খুলতেই দেখি জগু ঝুলছে। পাশের ঘরে শুয়ে থাকা মণিকে ডেকে তুলি। মণি ওই দৃশ্য দেখার পর বাড়ি থেকে বেরিয়ে যায়। কিছুক্ষন বাদেই খবর পেলাম মণি ট্রেনের সামনে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। প্রসঙ্গত, একদা সাইনবোর্ড শিল্পী হিসেবে দুই ভাইয়ের খ্যাতি ছিল নৈহাটি জুড়ে।

কম্পিউটার আসার পর ব্যবসায় ভাটা আসে। বর্তমানে গাড়িতে নেমপ্লেটে নাম-নম্বর লাগাবার ও ফ্লেক্স ব্যানার ছাপানোর ব্যবসা করতেন দুই ভাই। ইদানিং যৌথ ব্যবসা নিয়ে বিবাদ চরমে পৌঁছেছিল। তবে যমজ দুই ভাইয়ের আত্নহত্যার ঘটনায় হতবাক পড়শিরাও।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × 4 =