ফের শহরে অ্যাকশন মোডে ইডি, নিয়োগ ‘দুর্নীতি’ তদন্তে পার্থ-‘ঘনিষ্ঠ’ প্রোমোটারের বাড়িতে হানা

শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় ফের অ্যাকশনে নামল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। শুক্রবার সকাল থেকে কলকাতার বিভিন্ন প্রান্তে তল্লাশি শুরু হয়েছে।  এদিন সকাল ৭টা নাগাদ তদন্তকারীদের একটি দল হানা দেয় প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ‘ঘনিষ্ঠ’ প্রোমোটার রাজীব দে-র নাকতলার বাড়িতে। পার্থের নাকতলার বাড়ির উল্টোদিকেই বাড়ি এই প্রোমোটারের। তবে শুধু নাকতলাই নয়, শহরের মোট পাঁচ জায়গায় তল্লাশি চালাচ্ছেন ইডি আধিকারিকেরা। তল্লাশি চলছে বাঁশদ্রোণীর একটি বাড়িতেও। ইডি সূত্রে খবর, ওই বাড়িটিও রাজীবের মালিকানাধীন।

কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটির সূত্রে জানা গিয়েছে, প্রাথমিকে নিয়োগ ‘দুর্নীতি’র তদন্তে নেমে রাজীব দে নামের ওই প্রোমোটার তদন্তকারীদের আতসকাচের তলায় আসেন। তদন্তের সূত্রেই বেশ কিছু নথিপত্র খতিয়ে দেখতে গিয়ে পার্থের সঙ্গে ওই প্রোমোটারের ‘ঘনিষ্ঠতা’র বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে। তার পর শুক্রবার সকালে রাজীবের দুয়ারে কড়া নাড়লেন তদন্তকারীরা।

গত সপ্তাহেই পার্থ ঘনিষ্ঠ কাউন্সিল বাপ্পাদিত্য দাশগুপ্তকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন ইডি আধিকারিকরা। জানা যাচ্ছে, বাপ্পাদিত্যর কাছে কয়েকজন প্রোমোটারের বিষয়ে জানতে চাওয়া হয়েছিল। ৫ প্রোমোটারের সঙ্গে পার্থর যোগ ছিল বলে সন্দেহ রয়েছে ইডি আধিকারিকদের। সেই সূত্রেই রাজীব দে-র নাম উঠে এসেছে বলে জানা গিয়েছে। এদিন রাজীব দে-র অফিস ও বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে কিছু নথি উদ্ধারের চেষ্টা করছে ইডি।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *