সূচী চূড়ান্ত হওয়ার আগেই কাতার বিশ্বকাপের টিকিট নিয়ে বিশ্বব্যাপী চাহিদা তুঙ্গে

‘গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’ বিশ্বকাপ ফুটবল। এই প্রথম মধ্যপ্রাচ্যে হতে যাচ্ছে। সামনে আর ৮ মাস। এরপরে নভেম্বরের কাতারে বসবে বিশ্বকাপের ২২তম আসর। সুতরাং বিশ্বকাপের মত অনুষ্ঠানটার এই সময়টা এমন কিছু নয়। এই দিনটার জন্য জন্য বিশ্বের ফুটবলভক্তরা রীতিমতো অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছেন। চায়ের আড্ডায় শুরু হয়ে গেছে বিশ্বকাপ নিয়ে আলোচনা— কারা অংশ নিচ্ছে কাতার বিশ্বকাপে, কারা বাদ পড়ছে।

চলতি মাসের মধ্যেই শেষ হবে ইউরোপের প্লে-অফ সহ সব অঞ্চলের বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে ১ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হবে বিশ্বকাপের আনুষ্ঠানিক ড্র। আর তর সইছে না ফুটবল ভক্তদের। বিশ্বকাপের একটা টিকিট পাওয়ার জন্য সবাই হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন। বলা যেতে পারে, কাতার বিশ্বকাপের টিকিট নিয়ে কাড়াকাড়ি শুরু হয়ে গেছে। আকাশচুম্বী হয়ে উঠেছে চাহিদা।

গত ২০ জানুয়ারি প্রথম ধাপের টিকিট বিক্রির কার্যক্রম শুরু হয়। প্রথম ধাপে টিকিট পাওয়ার জন্য ১৭ লাখ ফুটবলপ্রেমী আবেদন করেছেন। আবেদনকারীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি হলেন কাতারের। এ ছাড়া আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল, ইংল্যান্ড, ফ্রান্স, ভারত, মেক্সিকো, সৌদি আরব ও আরব আমিরাত থেকে প্রচুর আবেদন পড়েছে টিকিটের জন্য। ২০২২ কাতার বিশ্বকাপের ফাইনালের ভেন্যু লুসাইল স্টেডিয়ামের ধারনক্ষমতা ৮০ হাজার। কিন্তু ফাইনালের টিকিটের জন্য আবেদন পড়েছে ১৮ লাখ! অথচ এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপের সূচি চূড়ান্ত হয়নি। আর ১ এপ্রিল থেকে দ্বিতীয় ধাপের টিকিট বিক্রি শুরু হবে। আগে আসলে আগে টিকিট মিলবে, এই ভিত্তিতে টিকিট বিক্রি করা হবে। প্রথম ধাপের অভিজ্ঞতা থেকে বলা যায় দ্বিতীয় ধাপের টিকিটের জন্য আরও কাড়াকাড়ি লাগবে নিঃসন্দেহে। আর টিকিটের চাহিদা আরও বাড়বে যদি রোনাল্ডোর পর্তুগাল বিশ্বকাপে জায়গা করে নেয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 × 4 =