বদলির ভয় দেখানোর অভিযোগ, ছ’টি শ্রমিক সংগঠনের বিক্ষোভ

নিজস্ব প্রতিবেদন, পাণ্ডবেশ্বর: ইসিএলের বাঁকোলা এরিয়া কর্তৃপক্ষ কোলিয়ারির স্থায়ী শ্রমিকদের সবসময় বদলির ভয় দেখাচ্ছেন বলে দাবি তুলে প্রতিবাদে সোমবার সকাল ৯টা থেকে এমডিও প্রজেক্টের কাজ বন্ধ করে বিক্ষোভে সামিল হন কোলিয়ারির দু’টি পিটের প্রায় ৭২৩ জন স্থায়ী শ্রমিক। সকাল ৯টা থেকে বিক্ষোভ চলার পর অবশেষে বাঁকোলা এরিয়ার ইসিএল কর্তৃপক্ষ শ্রমিক ও শ্রমিক সংগঠনের দাবি মেনে নেয়। ঠিক হয় যে সকল শ্রমিক স্বেচ্ছায় বদলি যেতে চান, তা¥রা বদলি নিতে পারেন। কর্তৃপক্ষ জোর করে কাউকে বদলি করবে না। এরপরই বেলা ২ টো নাগাদ বিক্ষোভ তুলে নেন শ্রমিক সংগঠনের লোকেরা।
শ্রমিক সংগঠনের নেতারা জানান, শ্রমিক সংগঠন এমডিওর বিরুদ্ধে নয়, তাঁরা কোনও ভাবেই কয়লা উৎপাদন ব্যাহত হোক চান না। তবে এমডিওর নামে স্থায়ী শ্রমিকদের এখান থেকে বদলির যে প্রক্রিয়া বাঁকোলা এরিয়ার ইসিএল কর্তৃপক্ষ চালাচ্ছে তাঁরা তার বিরোধী। সংগঠনের নেতারা জানান, তাঁদের তেলাবনী কোলিয়ারিতে রয়েছে দু’টি পিট (চাণক)। এই দু’টি চাণকের মোট স্থায়ী কর্মী সংখ্যা ৭২৩ জন। কিন্তু ইসিএল কর্তৃপক্ষ তাঁদের ম্যানপাওয়ার বাজেটে ১২৩ জনের কথা উল্লেখ করেছেন। তা হলে ৭২৩ জনের মধ্যে ১২৩ জনকে বাদ দিলে বাকিরা সানগ্লাসে চলে আসবেন আগামী দিনে তাঁদেরকে অন্যত্র বদলি করার পথ সুগম হবে বলে মনে করছেন তাঁরা। সে কারণেই তাঁরা স্থায়ী শ্রমিকদের বদলির বিরুদ্ধে এই বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।
ঘটনাস্থলে কোলিয়ারির ম্যানেজার সুমন্ত কুন্ডু উপস্থিত ছিলেন। তবে তিনি এই বিষয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে রাজি হননি। শ্রমিক সংগঠনের এই বিক্ষোভের জেরে বন্ধ হয়ে রইল এমডিও প্রজেক্টের কাজ। শ্রমিক সংগঠনের একটাই দাবি, স্থায়ী শ্রমিকদের বদলির প্রক্রিয়া বন্ধ করতে হবে এবং ম্যানপাওয়ার বাজেটে ৭২৩ জনের নাম প্রকাশ করতে হবে। তা হলেই তাঁরা এই আন্দোলন থেকে সরে দাঁড়াবেন। উল্লেখ্য, পাণ্ডবেশ্বর বিধানসভার ইসিএলের বাঁকোলা এরিয়ার তিলাবনী কোলিয়ারিতে বেসরকারি সংস্থাকে বরাত দেওয়া হয়েছে এমডিও (মাইন ডেভেলপার অ্যান্ড অপারেটর) পদ্ধতিতে আধুনিক ভাবে খনির নীচ থেকে কয়লা উত্তোলনের কাজ। সেই এমডিও প্রজেক্টের কাজ ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে, যদিও কয়লা উত্তোলন এখনও শুরু হয়নি।
এদিনের এই বিক্ষোভে শ্রমিক সংগঠন এইচএমএসে তরফে মিন্টু ব¨্যােপাধ্যায়, কয়লা খাদান শ্রমিক সংগঠনের নেতা বলাই ব¨্যােপাধ্যায় ও সিআইটিও নেতা জগন্নাথ মুখোপাধ্যায় উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন অন্যান্য শ্রমিক সংগঠনের নেতা কর্মীরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *