দোলের দিন কলকাতা পুলিশের হাতে গ্রেফতার ৩০৫

দোলের দিন শহর কলকাতায় যাতে কোথাও কোনও অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে তারজন্য সকাল থেকে কড়া নজরদারি ছিল কলকাতা পুলিশের। জায়গায় জায়গায় পুলিশ পিকেট বসানো হয়েছিল। শহরের রাস্তায় ছিল পর্যাপ্ত সাদা পোশাকের পুলিশও। পুলিশের বাইক পেট্রোলিং টিম ও মহিলা পুলিশের উইনার্স টিমও পর্যাপ্ত সংখ্যায় মোতায়েন ছিল শহরে।

সোমবার বেলা শেষে কলকাতা পুলিশের তরফ থেকে জানানো হয়, দিনভর কলকাতা পুলিশের সজাগ নজরদারির জেরে এদিন বড়সড় কোনও বিপত্তি এড়ানো গিয়েছে শহরে। এদিন অভব্য আচরণের জন্য কলকাতা পুলিশ মোট ৩০৫জনকে গ্রেফতার করা হয়। এর পাশাপাশি বাজেয়াপ্ত হয়েছে প্রচুর বেআইনি মদও। সব মিলিয়ে মোট প্রায় ৪৭ লিটার বেআইনি মদ বাজেয়াপ্ত করেছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, দোলযাত্রা ও হোলি উপলক্ষ্যে সোমবার ও মঙ্গলবার দু’দিনই শহরজুড়ে বাড়তি নজরদারির ব্যবস্থা করেছে কলকাতা পুলিশ। কোনওরকম অভব্য আচরণ ঠেকাতে শহরের সমস্ত গুরুত্বপূর্ণ রাস্তার মোড়ে মোড়ে মোতায়েন ছিল পুলিশ বাহিনী। শহরজুড়ে বিভিন্ন প্রান্ত ঘুরে বেরিয়েছে পুলিশের পিসিআর ভ্যান। পুলিশের এই সতর্ক নজরদারির জেরেই অভব্য আচরণের অভিযোগে ৩০৫ জনকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়েছে। প্রসঙ্গত, অতীতে বিভিন্ন সময়ে এই উৎসবের দিনগুলিতে শহরে বাইকের তাণ্ডব দেখা গিয়েছে। দেদার মদ্যপান থেকে শুরু করে হুল্লোড় আর ট্রাফিক আইনের তোয়াক্কা না করেই গাড়ি-বাইক ছোটানোর মতো ঘটনা ঘটেছে অতীতে।

প্রতিটি উৎসবের দিনে তাই শহরে এই ধরনের কোনও অনভিপ্রেত ঘটনা যাতে এড়ানো যায়, তার জন্য সর্বদা সচেষ্ট থাকে পুলিশ। এবারও দোলের জন্য আগেভাগে শহরজুড়ে প্রায় তিন হাজার পুলিশকর্মী মোতায়েন করার প্ল্যানিং করে ফেলা হয়েছিল। আর তাতেই কলকাতা পুলিশের হাতে এল এই সাফল্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *