দূষণ সংক্রান্ত ছাড়পত্র নেই! রবিতে কল্যাণী এইমসের উদ্বোধনের আগে বিতর্ক

আজ রবিবার কল্যাণী এইমসের উদ্বোধন করার কথা দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির। তার আগেই হাসপাতালের পরিবেশগত ছাড়পত্র নিয়ে তৈরি হল বিতর্ক। নতুন বিল্ডিংয়ের জন্য নাকি নেওয়া হয়নি পরিবেশ দূষণ সংক্রান্ত ছাড়পত্র! এই অভিযোগ তুলেছে খোদ দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ।
পরিবেশগত ছাড়পত্র দেওয়া না হলে ‘কনসেন্ট টু অপারেট’ দেওয়াও সম্ভব নয় বলেই জানানো হয়েছে। এদিকে সুপ্রিম কোর্টের স্থগিতাদেশের রায়ের কারণেই এই ছাড়পত্র দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না বলেও জানিয়েছে দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদ। ফলত, এইমস উদ্বোধনের আগেই নতুন করে একটি বিতর্কের সূত্রপাত হয়। যদিও, মোদির উদ্বোধনী অনুষ্ঠান বাতিলের ব্যাপারে এখনও কিছু জানানো হয়নি।
২০১১ সালে তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পরে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কল্যাণীতে এমস গড়ার কথা বলেন। কেন্দ্রের সবুজ সংকেত মেলায় কলকাতা থেকে ৫০ কিলোমিটার দূরে ১৮০ একর জমিতে হাসপাতাল তৈরির কাজ শুরু হয় ২০১৫ সালে। ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বরে মেডিক্যাল কলেজটি চালু হয়। এ বার পূর্ণ রূপে হাসপাতাল চালু হতে চলেছে। রবিবার তার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। তার আগেই নতুন বিতর্ক শুরু হয়ে গেল। এই প্রেক্ষিতে প্রশ্ন উঠছে, আসন্ন লোকসভা ভোটের দিকে তাকিয়েই কি তড়িঘড়ি এমস চালু করতে চাইছে কেন্দ্রীয় সরকার? তাই কি পরিবেশ দূষণ সংক্রান্ত ছাড়পত্র নেওয়া হয়নি? এ বিষয়ে কেন্দ্র বা এমস কর্তৃপক্ষের কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।
এইমস কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে জানানো হচ্ছে, ‘রাজ্য সরকারের দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদের তরফে আদালতে একটি মামলা দায়ের আছে। সেটি আদালতে বিচারাধীন। আদালত যা রায় দেবে, সেই অনুযায়ী পরবর্তী পদক্ষেপ হবে। তবে এর সঙ্গে উদ্বোধনের কোনও বিষয় নেই। নির্দিষ্ট সূচি মেনেই অনুষ্ঠান হবে।’ রবিবার গুজরাতের রাজকোট থেকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এইমস রাজকোট, এইমস ভাতিন্ডা, এইমস মঙ্গলগিরি, এইমস রায়বেরেলি এবং এইমস কল্যাণীর উদ্বোধন করবেন ভার্চুয়ালি। যা নিয়ে ইতিমধ্যেই চূড়ান্ত প্রস্তুতি শুরু হয়ে গিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *