পুণে মেট্রোর উদ্বোধন করে গণপরিবহণ সম্প্রসারণের আশ্বাস প্রধানমন্ত্রীর

ভারত দ্রুত নগরায়ণের মধ্য দিয়ে যাওয়ার কারণে সরকার দ্রুত গতিতে গণপরিবহণ ব্যবস্থাগুলিকে উন্নত করার জন্য সক্রিয়ভাবে কাজ করছে বলে দাবি করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (Narendra Modi)। রবিবার পুণেতে একটি মেট্রো রেল (Metro Line)লাইনের উদ্বোধনের পরে একটি জনসভায় ভাষণ দেওয়ার সময় প্রধানমন্ত্রী (Prime Minister) মোদি বলেন, মেট্রো রেল পরিষেবাগুলি দিল্লি এনসিআর এবং কয়েকটিতে সীমাবদ্ধ ছিল। ২০১৪ সাল পর্যন্ত শহরগুলি এখন সারা দেশে দুই ডজনেরও বেশি জায়গায় বিস্তৃত হয়েছে। এটি অনুমান করা হচ্ছে, ২০৩০ সালের মধ্যে ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যা অনেকগুলি সুযোগ এবং চ্যালেঞ্জ নিয়ে আসে। শহরগুলিতে ফ্লাইওভারগুলি (Flyover) শুধুমাত্র নির্দিষ্ট সীমা পর্যন্ত নির্মাণ করা যেতে পারে। এমন পরিস্থিতিতে একমাত্র বিকল্প হল বৃদ্ধি করা। আমাদের সরকার গণপরিবহণ, বিশেষ করে মেট্রো সংযোগের উপর দৃষ্টি নিবদ্ধ করছে।

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, মানুষের গতিশীলতা বৃদ্ধিতে মেট্রো সংযোগ সময়ের প্রয়োজন। পুণে সাংস্কৃতিক, শিক্ষা, তথ্যপ্রযুক্তি, গবেষণা এবং উন্নয়নের ক্ষেত্রে তার পরিচয়কে শক্তিশালী করেছে। এমন পরিস্থিতিতে, আধুনিক সুযোগ-সুবিধাগুলি পুনের জনগণের জন্য সময়ের প্রয়োজন এবং আমাদের সরকার তাদের প্রত্যাশা পূরণের জন্য ২৪ ঘণ্টা কাজ করছে।

প্রসঙ্গত, প্রধানমন্ত্রী মোট ৩২.২ কিমি পুণে মেট্রো (Pune Metro) রেল প্রকল্পের ১২কিমি প্রসারিত উদ্বোধন করেন, যা ১১,৪০০ কোটি টাকারও বেশি ব্যয়ে নির্মিত হয়েছে। অত্যাধুনিক প্রযুক্তির জয়গান গাওয়ার পাশাপাশি এর আগের কংগ্রেস সরকারকেও কাঠগড়ায় তুলেছেন তিনি। তাঁর কথায়, ‘অলস মনোভাবেই দেশের উন্নয়ন থমকে থেকেছে।’ সেই সঙ্গে তাঁর ঘোষণা, ‘আজকের ভারত দ্রুত এগিয়ে চলেছে। তাই গতির উপরে আমাদের নজর রাখতেই হবে। আর এই কারণেই আমাদের সরকার ‘পিএম গতিশক্তি ন্যাশনাল মাস্টার প্ল্যান’ তৈরি করেছে।’

মোদির সফর ঘিরে পুণেতে কড়া নিরাপত্তার বন্দোবস্ত করা হয়েছিল। সতর্কতামূলক বেশ কিছু পদক্ষেপ করা হয়েছে। আসলে এর আগে তাঁর পঞ্জাব সফরে নিরাপত্তা নিয়ে যে বিতর্ক তৈরি হয়েছিল সেদিকে খেয়াল রেখেই এই বাড়তি সতর্কতা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

9 + nineteen =