সাংসদের সাসপেনশনের প্রতিবাদ, যন্তরমন্তরে ধর্না ‘ইন্ডিয়া’র

শুক্রবার যন্তরমন্তরে রীতিমতো ইন্ডিয়ার ব্যানারে ধর্না কর্মসূচি পালিত হল। এই কর্মসূচিতে কংগ্রেসের শীর্ষ নেতাদের পাশাপাশি অন্য দলের উপস্থিতিও চোখে পড়ল। ধরনায় ছিলেন সাসপেন্ড হওয়া সাংসদরা। তৃণমূলের তরফে ছিলেন মৌসম বেনেজির নূর। ছিলেন সীতারাম ইয়েচুরি, ডি রাজারাও। সংসদের শীতকালীন অধিবেশনে রাজ্যসভা এবং লোকসভার ১৪৭ জন সাংসদকে সাসপেন্ড করেছেন স্পিকার। তার প্রতিবাদে এই প্রথমবার ‘ইন্ডিয়া’র ব্যানারে রাস্তায় নামলেন বিরোধী সাংসদরা। দিল্লির যন্তরমন্তরে ইন্ডিয়ার ব্যানারে ধর্না কর্মসূচি পালন করল ইন্ডিয়া জোটের সদস্যরা।

এদিন ওই ধর্না মঞ্চ থেকেই সংসদ হানা নিয়ে মুখ খুলেছেন রাহুল গান্ধি। তিনি জানান, ‘সেদিন সংসদে যখন হামলা হল, তখন বিজেপি সাংসদদের সাহসের বেলুন চুপসে গিয়েছিল। সবাই ভয়ে পালিয়েছিল। সংসদে নিরাপত্তায় গলদ হয়েছে। সেটা একটা সমস্যা। আরও একটা সমস্যা হল, কেন ওই হামলা হল। বিক্ষোভকারীরা আসলে বেকারত্বের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করতে চেয়েছিল। সরকার ওদের কথা শোনে না।’ উল্লেখ্য, সংসদের নিরাপত্তা বিচ্যুতি এবং বিরোধীদের সাসপেন্ড করা নিয়ে বৃহস্পতিবারও পথে নেমেছিলেন বিরোধী সাংসদরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *