হোম সেন্টারে উচ্চ মাধ্যমিক, নজরদারি চালাতে পর্যবেক্ষক

কলকাতাn করোনার জন্য গতবছর উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা হয়নি। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসায় পরীক্ষাকেন্দ্রে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত হলেও, তা হবে হোম সেন্টারে। অর্থাৎ পরীক্ষার্থীদের নিজেদের স্কুলে। তাই এবার উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার জন্য বিশেষ পর্যবেক্ষক নিয়োগ করেছে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। পরীক্ষা চলাকালীন বিশেষ নজরদারি চালাবেন ওই পর্যবেক্ষকরা। মহিলা পুলিশ সহ মোট চার জন পুলিশকর্মীকে পরীক্ষা কেন্দ্রগুলিতে থাকতে হবে। পরীক্ষা কেন্দ্রগুলির মধ্যে মোবাইল নিয়ে যাওয়ার অধিকার থাকবে একমাত্র বিশেষ পর্যবেক্ষকের। অন্য কেউ মোবাইল নিয়ে যেতে পারবেন না। কোনও অপ্রয়োজনীয় ব্যক্তি যাতে পরীক্ষা কেন্দ্রের ৫০ মিটারের মধ্যে আসতে না পারেন, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে বিশেষ পর্যবেক্ষকদের। এর পাশাপাশি পরীক্ষা চলাকালীন যাতে কোনওরকম আপত্তিজনক পরিস্থিতি না তৈরি হয়, সেই দিকেও খেয়াল রাখতে হবে উচ্চমাধ্যমিকের বিশেষ পর্যবেক্ষকদের।
করোনার পরিস্থিতি এখন প্রায় নিয়ন্ত্রণে এসে গিয়েছে। কিন্তু উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ থেকে আগে থেকেই তখনকার করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল, হোম সেন্টারেই হবে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা। এখন করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এসে গেলেও সেই নিয়মে কোনও বদল আনা হয়নি। উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থীরা নিজেদের স্কুলে বসেই পরীক্ষা দেবেন। তাই এই পরিস্থিতিতে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার জন্য বিশেষ পর্যবেক্ষক নিয়োগ করেছে উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। বুধবার এই সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তিও প্রকাশ করা হয়েছে। ওই বিজ্ঞপ্তিতে বিশেষ পর্যবেক্ষকদের কী কী করণীয়, সেই সম্পর্কে একটি গাইডলাইন স্থির করে দেওয়া হয়েছে।
উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের তরফে জানানো হয়েছে, পরীক্ষার জন্য নিযুক্ত বিশেষ পর্যবেক্ষকদের ™রীক্ষার হলে ঢোকার দরকার নেই। তবে সামগ্রিকভাবে গোটা পরীক্ষার উপর তাঁকে নজর রাখতে হবে। কোনওরকম প্রয়োজন হলে সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসনের সঙ্গে যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে। এর পাশাপাশি, জরুরি প্রয়োজনে উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের সঙ্গে যোগাযোগ করতেও পরামর্শ দেওয়া হয়েছে বিশেষ পর্যবেক্ষকদের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 × 3 =