কেকেআরের সামনে আজ রাজস্থান, মরণ-বাঁচন ম্যাচে নাইটদের ভরসা সেই রাসেল

আন্দ্রে রাসেল আজ পারবেন, না পারবেন না? শ্রেয়স আইয়ার আজ চেনা মেজাজে থাকবেন, না থাকবেন না?

বরুণ চক্রবর্তী খেলবেন আজ? নাকি ফের ডাগআউটে তাঁকে বসিয়েই আজ মাঠে নামবে কেকেআর?
তিনটে প্রশ্ন বলা হল মাত্র। আদতে আতঙ্ক-দুশ্চিন্তা মিশ্রিত এ হেন হাজারো প্রশ্ন নাইট সমর্থকদের চরম উৎকণ্ঠায় রেখে দিচ্ছে। কারণটা খুব সহজ। সোমবার রাজস্থান রয়্যালসের বিরুদ্ধে ফের হারলে, কার্যত সব শেষ। প্লে অফের স্বপ্ন দেখা হয়তো তার পর ছেড়ে দিতে হবে। দাঁড়ান, এখানেই শেষ নয়। আজ কেকেআর আবার হারলে লজ্জার একটা রেকর্ড ফিরে আসবে ফের। টানা ছয় ম্যাচ হারার মহালজ্জার রেকর্ড। ২০১৯ আইপিএলে যা ঘটেছিল নাইটদের ভাগ‌্যে।

লিগ টেবলের অবস্থান বলছে, কেকেআর এখনও পর্যন্ত ন’টা ম্যাচ খেলে জিতেছে মাত্র তিনটেয়। হেরেছে ছ’টায়! তার মধ্যে শেষ পাঁচটা ম্যাচে টানা হার। আইপিএল এবার দশ টিমের বলে অনেক ক্রিকেট বিশেষজ্ঞেরই ধারণা, প্লে অফে যেতে হলে নিদেনপক্ষে ষোলো পয়েন্ট চাই-ই। তার পরেও নেট রান রেটের উৎপাত থাকতে পারে। কিন্তু ষোলো পয়েন্ট মাস্ট, আঠারো হলে সবেচেয় ভাল। ন’টা ম্যাচ জিতে আঠারো পয়েন্টে পৌঁছনোর আর রাস্তা নেই শ্রেয়স আইয়ারের নাইটদের।

বড়জোর ষোলো পয়েন্টে তারা পৌঁছতে পারে। কিন্তু সেটা করতে হলেও শেষ পাঁচটা ম্যাচ টানা জিততে হবে। যার প্রথম বাধা রাজস্থান রয়্যালস। মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের কাছে যারা শেষ ম্যাচে হেরে গেলে কী হবে, ধারে-ভারে, ফর্মে কেকেআরের চেয়ে সঞ্জু স্যামসনরা অনেক এগিয়ে।

প্রাক্তন কেকেআর অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় এখনও আশা ছাড়েননি। এ দিন ইডেনে এসে সাংবাদিকদের বর্তমান বোর্ড প্রেসিডেন্ট বলে যান, “হয় এ রকম খেলায়। এটা ঠিক যে, কাজটা কঠিন। কিন্তু তাই বলে অসম্ভব নয়। অতীতে পরপর পাঁচটা ম্যাচ জিতে কিন্তু অনেকেই প্লে অফ খেলেছে। সবে অর্ধেক হয়েছে আইপিএল।”

কিন্তু মুশকিল হল, নাইটদের ফর্ম তো নেই-ই, উল্টে বারবার তারা বিদ্ধ হচ্ছে টিমে অত্যাধিক পরিবর্তন করা নিয়ে। শেষ তিনটে ম্যাচে তিন রকম ওপেনিং জুটি নামিয়েছে কেকেআর। গত ম্যাচে টিম থেকে বরুণ চক্রবর্তী সহ একাধিক ক্রিকেটারকে বসিয়ে দেওয়া হয়েছিল। আসলে কেকেআর কোচ ব্রেন্ডন ম্যাকালামের দর্শন হল: ‘তুমি যদি কাউকে না বদলাতে পারো, তা হলে তাকেই সরিয়ে দাও!’ বরুণরা পারেননি, ম‌্যাকালাম সরিয়ে দিয়েছেন। ভাল। কিন্তু এত বদলেও লাভ হল কোথায়? দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে সেই কুলদীপ যাদবের স্পিনে নতজানু হয়ে ফিরতে হয়েছে।

সে দিন কুলদীপ কেকেআর-বধ করেছেন, আজ আবার উল্টো দিকে থাকবেন যুজবেন্দ্র চাহাল। যিনি চলতি আইপিএলে নাইটদের সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতে পাঁচ উইকেট নিয়ে খেলা শেষ করে দিয়েছিলেন। দেখতে গেলে, চাহাল-বধে নাইটদের সেরা ভরসা হতে পারেন রাসেল। চাহালের বিরুদ্ধে যাঁর গড় ৮০! আজ পর্যন্ত চাহালের করা ৩৭ বল খেলে ৮০ রান করেছেন কেকেআরের ড্রে রাস। এ দিন নাইটদের নেট সেশনে ক্যারিবিয়ান অলরাউন্ডার সম্পূর্ণ স্বমহিমায়। ব্যাটে বলগুলো লাগছে আর মুহূর্তে অদৃশ্য হয়ে যাচ্ছে। তবে এখন নেটে বল ওড়ালে চলবে না, মাঠেও ওড়াতে হবে। সময় যে নেই আর। অফ ফর্ম আর সমালোচনায় জর্জরিত কেকেআর আজ তাকিয়ে থাকবে ড্রে রাসের দিকে। চাপেই তো খেলেন মহাতারকা। নইলে তিনি আর মহাতারকা কীসের?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

2 + 18 =