পঞ্জাবের বিরুদ্ধে মাত্র এক পয়েন্ট ইস্টবেঙ্গলের!

কোচ কার্লেস কুয়াদ্রাত কিংবা ক্যাপ্টেন ক্লেটন সিলভার কথাগুলোই বারবার উঠে আসে। ইন্ডিয়ান সুপার লিগে এর আগের ম্যাচে নজির গড়েছিল ইস্টবেঙ্গল। নর্থ ইস্ট ইউনাইটেডকে তারা হারিয়েছিল ৫-০’র বিশাল ব্যবধানে। যদিও জয়ের পর ক্য়াপ্টেন ক্লেটন সিলভা মন্তব্য করেছিলেন, ৫-০ স্কোরলাইন দেখে সমর্থকরা যেন বোকা না বনেন। কারণ, স্কোরলাইন যাই হোক, ম্যাচটা খুবই কঠিন ছিল! পঞ্জাব এফসির বিরুদ্ধে মাত্র এক পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়ল ইস্টবেঙ্গল।

আগের ম্যাচেই নর্থ-ইস্ট ইউনাইটেডকে পাঁচ গোল দিয়েছে লাল-হলুদ ব্রিগেড। চনমনে গোটা দল। তার উপর ঘরের মাঠের দর্শকদের সমর্থন ছিল সঙ্গী। তাছাড়া শনিবারের প্রতিপক্ষ ছিল আইএসএলে নবাগত দল পাঞ্জাব এফসি। যারা কিনা মরশুমে একটা ম্যাচও জিতে উঠতে পারেনি। স্বাভাবিকভাবেই সমর্থকদের আশা ছিল, ইস্টবেঙ্গল জিতবে, এবং ভালোভাবে জিতবে। কিন্ত এদিন নর্থ-ইস্ট ম্যাচের পুনরাবৃত্তি ঘটাতে পারলেন না ক্লেইটনরা।

এদিন ম্যাচের শুরু থেকে লড়াইটা হয়েছে সমানে সমানে। দুই দলই সম্ভবত খেলছিল ৩ পয়েন্টের জন্য। ফলে খেলাটা হয়েছে এন্ড টু এন্ড। দুই দলই আক্রমণে যাচ্ছিল। যার ফলে রক্ষণের ফাঁকফোঁকরগুলোও ধরা পড়ে যাচ্ছিল। ম্যাচের প্রথমার্ধেই শেষদিকে একটা সুবর্ণ সুযোগ পায় পাঞ্জাব। ইস্টবেঙ্গল সেভাবে স্পষ্ট সুযোগ তৈরি করতে না পারলেও বলের দখল বেশি ছিল তাঁদেরই। একই ধারা বজায় থাকল দ্বিতীয়ার্ধেও। গতিময় ফুটবল। সমানে সমানে আক্রমণ দুদলেরই। কিন্তু ফাইনাল থার্ডে ভালো মানের পাস বা শটের অভাবে গোলটাই এল না। ফলে ম্যাচ শেষ হল গোলশূন্যভাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *