আপাতত স্বস্তিতে পার্থ চট্টোপাধ্যায়, সিবিআই তদন্তে চার সপ্তাহের স্থগিতাদেশ ডিভিশন বেঞ্চের

কলকাতা:এসএসসি-র গ্ৰুপ-ডি, গ্ৰুপ-সি কর্মী ও নবম-দশমে শিক্ষক নিয়োগ মামলায় সিবিআই তদন্তের ওপর চার সপ্তাহের স্থগিতাদেশ দিল বিচারপতি সুব্রত তালুকদার ও বিচারপতি আনন্দকুমার মুখোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চ। থাকবে।মামলায় আরও চার সপ্তাহের জন্য স্বস্তি পেয়ে গেলেন রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় । আগামী ১৩ মে পর্যন্ত SSC সংক্রান্ত কোনও মামলায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে তলব বা জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারবে না সিবিআই। জানিয়ে দিল কলকাতা হাই কোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ।

ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, বিচারপতি রঞ্জিত কুমার বাগের নেতৃত্বে তদন্ত কমিটি যেমন তদন্ত করেছে, তেমনই তদন্ত করবে। বাগ কমিটি ইতিমধ্যেই হাই কোর্টে তাদের রিপোর্ট জমা দিয়েছে। বাগ কমিটির চেয়ারপার্সন তদন্তের দায়িত্ব থেকে পদত্যাগ করতে চেয়েছিলেন। কিন্তু আদালত জানিয়ে দিল সেই পদত্যাগপত্র গ্রহণযোগ্য নয়। বাগ কমিটিই তদন্ত করবে। অর্থাৎ এই মামলায় আপাতত সিবিআই তদন্তের ওপর স্থগিতাদেশ জারি থাকবে।

এদিকে বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়ের এজলাস বয়কট নিয়ে সকাল থেকেই ধুন্ধুমার পরিস্থিতি তৈরি হয় কোর্ট চত্বরে। এদিন সকাল থেকেই ১৭ নম্বর কোর্টের বাইরে বিক্ষোভ দেখান বয়কটপন্থী আইনজীবীরা। অন্যান্য আইনজীবীরা এজলাসে ঢুকতে গেলে তাদের বাধা দেওয়া হয়। শুধু তাই নয়, একটা সময় বয়কটকারী আইনজীবীরা বিচারপতির এজলাসের মধ্যেও ঢুকে যান। এজলাস থেকে সাংবাদিকদের বের করে দেওয়ার আবেদন জানান তাঁরা। তার প্রেক্ষিতে বিচারপতি মন্তব্য করেন, ‘গণতান্ত্রিক ব্যবস্থায় আমি সংবাদমাধ্যমকে বার করতে পারি না। সংবিধানে তারাও একটা অংশ। তারা সব সময় উপস্থিত থাকবে।’ এদিন মামলাকারীদের আইনজীবী বিকাশরঞ্জন ভট্টাচার্যকে ১৭ নম্বর এজলাসে আটকে দেওয়ার অভিযোগও ওঠে বিক্ষোভকারীদের বিরুদ্ধে। পরিস্থিতি সামাল দিতে শেষ পর্যন্ত হস্তক্ষেপ করতে হয় প্রধান বিচারপতিকেও।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

one × 4 =