নজিরবিহীন নির্দেশ হাই কোর্টের, রাজ্যে চার ধর্ষণ মামলার তদন্ত দময়ন্তীর নেতৃত্বে

কলকাতা:রাজ্যের চারটি ধর্ষণ মামলার তদন্ত চলবে কলকাতা হাইকোর্টের নজরদারিতে। দেগঙ্গা, মাটিয়া, ইংরেজবাজার ও বাঁশদ্রোনিতে ধর্ষণ মামলা নিয়ে রাজ্যজুড়ে শোরগোল। মঙ্গলবার এ নিয়ে হাইকোর্ট জানায়, বিশেষ টিম গঠন করে তদন্ত করা হবে। আইপিএস দময়ন্তী সেনের নেতৃত্বে বিশেষ দল তদন্ত করবে। তদন্তে কোনও অসুবিধা হলে আদালতকে জানাতে হবে। ২০ এপ্রিল মামলার পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য করেছে হাইকোর্ট।

মঙ্গলবার কলকাতা হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতির বেঞ্চ জানায়, বিগত দিনের অভিজ্ঞতা বলছে, দময়ন্তী নিরপেক্ষ ভাবে তদন্ত করেছেন। এদিন শুনানির সময় কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তব বলেন, ‘দু থেকে তিনটি ঘটনা পর পর ঘটল। কী হচ্ছে? কেন এমন ঘটনা? আমি বাকরুদ্ধ!’ তবে, প্রধান বিচারপতির নির্দেশের মধ্যে অবশ্য নদিয়ার হাঁসখালির ধর্ষণের ঘটনা নেই।

প্রসঙ্গত, কলকাতা পুলিশের স্পেশ্যাল কমিশনার দময়ন্তী এক দশক আগে ঘটে যাওয়া পার্কস্ট্রিট গণধর্ষণ মামলার সময় কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দা প্রধান ছিলেন। তখন তিনিই ওই ঘটনার তদন্ত করেছিলেন। ঘটনাচক্রে, তখন সদ্য ক্ষমতায়-আসা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ওই ঘটনাকে ‘সাজানো ঘটনা’ বলে মন্তব্য করেছিলেন। দময়ন্তী যদিও তাঁর তদন্তের প্রেক্ষিতে ধর্ষণ হয়েছে বলেই রিপোর্ট দিয়েছিলেন। তিনি তা সর্বসমক্ষে জানিয়েও ছিলেন।এদিন আদালত বলে, দময়ন্তী এই দায়িত্ব নিতে না চাইলে আদালতকে সরাসরি জানাতে পারেন।

একের পর এক ঘটা ধর্ষণ মামলা নিয় উদ্বেগ প্রকাশও করেন বিচারপতি।রাজ্যে হাঁসখালি, থেকে মাটিয়া, বোলপুর সামনে আসা একের পর এক ধর্ষণের ঘটনা জনমনে যথেষ্ট প্রভাব ফেলেছ। মঙ্গলবার শুনানি শুরু হয় ইংরেজবাজার ও মাটিয়া ধর্ষণ মামলা দিয়ে। শুনানির শেষে বিশেষ দল গড়ে তদন্তের কথা বলে উচ্চ আদালত।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

fifteen − 9 =