দায়িত্ব ছাড়ছেন অরুণ লাল, বাংলা দলের কোচ হওয়ার দৌড়ে জাফর-লক্ষ্মীরতন

সামনের বছর বাংলা কোচের হটসিটে কাকে দেখা যাবে? ওয়াসিম জাফর না লক্ষ্মীরতন শুক্লা? সিএবির অন্দরহমলে, এই দুটো নাম প্রবলভাবে ঘুরছে। আগামী মরশুমে অরুণ লাল আর বাংলা কোচ থাকছেন না, সেটা একপ্রকার নিশ্চিত।

হ্যাঁ, এটা ঠিক যে অরুণ লালের  কোচিংয়ে বাংলা খুব খারাপ খেলছে না। শেষবার রনজি ফাইনালে খেলেছিল টিম। এবারও এলিট গ্রুপে শীর্ষে থেকে নকআউটে গিয়েছে বাংলা। তবে অরুণ লালের কোচিং পদ্ধতি নিয়ে টিমে একটা ক্ষোভ আছে। তাছাড়া বঙ্গ কোচ নিজেই আর থাকতে চাইছেন না বলেই সিএবি  সূত্রে শোনা গেল। এই মরশুমেই অরুণ লালের চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়ে যাচ্ছে। স্বাভাবিকভাবে সামনের মরশুমে কাকে কোচ আনা হবে, সেটা নিয়ে আলোচনা শুরু হয়ে গিয়েছে। আপাতত জাফর আর লক্ষ্মী, এই দুটো নামই শোনা যাচ্ছে।

জাফরকে এই মরশুমেও কোচ করে নিয়ে আসার চেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু শেষমেশ সেটা সম্ভব হয়নি। বরং ওড়িশার কোচের দায়িত্ব নেন প্রাক্তন ভারতীয় ক্রিকেটার। ওড়িশার সঙ্গে তাঁর চুক্তিও রয়েছে। তবু সিএবি চেষ্টা করবে যদি কোনওভাবে জাফরকে নিয়ে আসা যায়। সেক্ষেত্রে জাফরকে বড়সড় আর্থিক প্রস্তাবও সিএবির তরফ থেকে দেওয়া হবে বলেই শোনা গেল। তবে জাফরের সঙ্গে লক্ষ্মীর নামও সিএবি কর্তাদের ভাবনায় ভালরকম রয়েছে। যদি কোনওভাবে জাফরকে নিয়ে আসা না যায়, তাহলে লক্ষ্মীকে দায়িত্ব দেওয়া হতে পারে।

বাংলা ক্রিকেটের অন্যতম সেরা ম্যাচ উইনার ছিলেন লক্ষ্মী। বঙ্গ ক্রিকেটে তাঁর অবদান কতটা, সেটা নতুন করে বলতে হবে না। বর্তমানে অনূর্ধ্ব ২৫ বাংলার টিমের কোচের দায়িত্ব সামলাচ্ছেন। সিএবি কর্তাদের অনেকেই মনে করেন, ভিন রাজ্যের কাউকে কোচ নিয়ে আসার চেয়ে ঘরের ছেলেকেই দায়িত্ব দেওয়া উচিত। পেশাদারিত্ব অবশ্যই দরকার, তার সঙ্গে বাংলার প্রতি আবেগ থাকাটাও খুব জরুরি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + 19 =