স্থিতিশীল হলেও সংকট কাটেনি মদন মিত্রর

কলকাতা: গত সোমবার মাঝরাতে আচমকা তীব্র শ্বাসকষ্ট ও বুকে ব্যথা নিয়ে এসএসকেএম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল মদন মিত্রকে। বর্তমানে সিসিইউ অর্থাৎ ক্রিটিক্যাল কেয়ার ইউনিটে চিকিৎসাধীন তিনি। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, তৃণমূল বিধায়কের কাঁধের হাড় ভেঙেছে। যার জেরে তাঁর একাধিক শারীরিক পরীক্ষা করা হয়েছে। তিনি আপাতত স্থিতিশীল হলেও এখনও সংকট কাটেনি।

সোমবার এসএসকেএম হাসপাতালের উডবার্ন ওয়ার্ডের ২০৬ নম্বর কেবিনে রেখে তাঁর চিকিৎসা শুরু হয় বিধায়কের। খুব কাশি হচ্ছিল। শ্বাসকষ্টের সমস্যাও ছিল। রাতে নেফ্রলজিস্ট তাঁর চিকিৎসা করেন। রাতভোর মোটের উপর স্থিতিশীল ছিলেন। পরের দু’দিন স্থিতিশীল থাকলেও বৃহস্পতিবার গভীর রাতে মদন মিত্র ফের তীব্র শ্বাসকষ্ট ও বুকে ব্যথা অনুভব করেন। এমনকী ভীষণ কাঁপুনি শুরু হয়। গোটা শরীর ঝাঁকিয়ে কাঁপতে থাকেন তিনি। জ্ঞানও হারান। এরপর সিপিআর দিয়ে স্বাভাবিক করার চেষ্টা করা হয় তাঁকে।

কিন্তু ওই তীব্র ঝাঁকুনিতেই কাঁধের হাড় ভেঙে যায় মদন মিত্রের। শুক্রবার সকাল থেকেই কার্ডিওলজি, নেফ্রোলজিস্ট-সহ মোট ১০ জন চিকিৎসকের একটি দল কামারহাটির বিধায়কের চিকিৎসার দায়িত্ব নেন। অক্সিজেন স্যাচুরেশন কম থাকায় তাঁকে অক্সিজেন দেওয়া হয়। পাশাপাশি স্পাইনাল কর্ডের সিটিস্ক্যান করা হয়। মস্তিষ্কের এমআরআই-ও করা হয়েছে। হাড় ভাঙার বিষয়টি ঠিক কতখানি গুরুতর, এখনও অস্ত্রোপচার করতে হবে কি না, তা এই পরীক্ষাগুলির রিপোর্ট হাতে এলে নিশ্চিত হতে পারবেন চিকিৎসকরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *