বড়দিনের রাতে বেপরোয়া বাইক চালাতে গিয়ে মৃত ১, আইনভঙ্গ করায় পুলিশের জালে ২৪৭

বড়দিনের রাতে বেপরোয়া বাইক চালাতে গিয়ে প্রাণ গেল বছর ৩২-এর এক যুবকের। সূত্রে খবর, সোমবার গভীর রাতে নিউমার্কেট থানা এলাকায় বেপরোয়া বাইক চালানোর সময় ডোরিনা ক্রসিংয়ে বাইক নিয়ে গার্ডরেলে ধাক্কা মারেন রাহুলকুমার তিওয়ারি। গুরুতর আহত অবস্থায় বাইক চালককে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করা হয়। পুলিশ সূত্রে খবর, রাহুল হাওড়ার বাসিন্দা। সঙ্গে এও জানানো হয়েছে,  রাহুলের মাথায় হেলমেট ছিল না। হেলমেট বাইকের পাশে ঝোলানো অবস্থায় ছিল বলেই পুলিশ সূত্রে খবর। তিনি মদ্যপ অবস্থায় ছিলেন কি না তাও দেখা হচ্ছে পুলিশের তরফে।

এদিকে বড়দিনের রাতে দেদার ফূর্তি চলে পার্ক স্ট্রিট সহ কলকাতার নানা জায়গায়। প্রতি বছরই বছর শেষের উন্মাদনায় মাতে শহর কলকাতা। সেখানেই বাঁধন ছাড়া আনন্দ করতে গিয়ে আইনকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে বিপাকে পড়েন বহু। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি। আর এই ফূর্তিতে গা ভাসিয়ে কেউ মদ্যপ অবস্থায় বাইক চালিয়েছেন, সঙ্গে পরোয়া করেননি ট্রাফিক আইনেরও। তবে রবিবার রাতের পর সোমবার বড়দিনেও উৎসবমুখী শহরে লাগাতার নজরদারি চালায় কলকাতা পুলিশ। বড়দিনের রাতে অনেকেই হেলমেট পরেননি। হেলমেট না থাকায় কলকাতায ট্রাফিক পুলিশে ২৪৭ জনের বিরুদ্ধে ট্রাফিক আইন ভাঙার অভিযোগ দায়ের হয়। ট্রাফিক পুলিশ সূত্রে খবর, যার মধ্যে বিনা হেলমেটে মোটর সাইকেল চালানোর অভিযোগ রয়েছে ১৩১টি। একসঙ্গে তিনজন মোটর সাইকেলে চেপে বেরোনোর অভিযোগ রয়েছে ৮৪টি। মদ্যপ অবস্থায় বিপজ্জনকভাবে গাড়ি চালানো এবং অন্যান্য কারণে ট্রাফিক আইন ভাঙার অভিযোগ ৩২ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের কলকাতা ট্রাফিক পুলিশের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *